খবর ২৪ ঘন্টা

ইস্টবেঙ্গল হারল ২-১ এ,কার্যত কলকাতা লিগ খেতাব থেকে ছিটকে গেল তারা

শেয়ার করুন সকলের সাথে...

যাকে বলা ‘পচা শামুকে পা কাটা’। সুভাষ ভৌমিকের ছেলেদের শেষ দুম‍্যাচে অবস্থাটা সেরকমই। প্রথমে পিয়ারলেসের ক্রোমা,নরহরি তারপর সাদা-কালো জার্সিতে ঘানার আদজ্জা লাল – হলুদের নেমেসিস হয়ে দেখা দিল। রেফারি দীপু রায় নির্ধারিত সময়ের পরে অতিরিক্ত সময়ের নির্ধারিত ৬ মিনিটের পরে ও যখন লম্বা বাঁশি বাজালেন ততক্ষণে ১২ মিনিট হয়ে গেছে। কিন্তু মাঠে লাল হলুদ জার্সিতে সিরিয়ান আল আমনা ছাড়া আর সেভাবে কারুর মধ‍্যেই ম‍্যাচ জেতার তাগিদটা অনুভব করা গেল না।ফলাফল রঘু নন্দীর ছেলেরা ২-১ গোলে হারিয়ে দিল আমানাদের। সারা মরসুমে ১ গোল খাওয়া লাল হলুদ ডিফেন্স কোস্টারিকার বিশ্বকাপার ডিফেন্ডার জনি অ‍্যাকোস্টা আসার পর ধারা বজায় রেখে শেষ ৩ ম‍্যাচে ২ গোল করে হজম করার অভ‍্যেসে বদল আনতে ব‍্যর্থ হল। প্রসঙ্গত ম‍্যাচের প্রথমার্ধে ১১ মিনিটে এই জনি অ‍্যাকোস্টার গোলেই এগিয়ে গেছিল লাল হলুদ বিগ্রেড। তবে দ্বিতীয়ার্ধে সময় যত গড়িয়েছে মহামেডানের আক্রমণের ঝাঝ তত বেড়েছে। তবে কিছুতেই ইস্টবেঙ্গলের জালে বল ঢোকাতে ব‍্যর্থ হচ্ছিলেন সাদা কালো বিগ্রেড। অবশেষে ৮৬ মিনিটে ঘানার স্ট্রাইকার আদজ্জা ,জনির পা থেকে কার্যত বল কেড়ে নিয়ে রক্ষিত ডাগারকে পরাস্ত করে ম‍্যাচের ফল ১-১ করেন। অতিরিক্ত সময়ে ৯০+১০’ সেই আদজ্জাই ফের লাল হলুদ ডিফেন্স চিড়ে শেষ পেরেকটি পুঁতে দেন ইস্টবেঙ্গলের কফিনে। ২-১ ফলে ম‍্যাচ হেরে লাল হলুদ ১০ ম‍্যাচে ২০ পয়েন্টেই থাকল। মোহনবাগান পরের ম‍্যাচে জিতলেই কলকাতা লিগের শিরোপা উঠবে তাদের মাথায়।

Facebook Comments

শেয়ার করুন সকলের সাথে...