গণপিটুনি নিয়ে রাজ্যগুলিকে রিপোর্টের নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টের

শেয়ার করুন সকলের সাথে...
  • 18
    Shares

২০ জুলাই গরু পাচারকারী সন্দেহে রাকবর খান নামে এক যুবককে পিটিয়ে মারা হয়। এ ঘটনার পর উত্তপ্ত হয়েছিল জাতীয় রাজনীতি। সংসদে বাদল অধিবেশনে রাজ্যসভা ও লোকসভায় বিরোধীরা গণপিটুনি নিয়ে সরব হয়েছিল। কংগ্রেস নেতা তেহসান পুনাওয়ালা শীর্ষ আদালতে মামলা দায়ের করেন। আবেদনে তিনি বলেন, রাকবর খানের পিটিয়ে মারার ঘটনায় শীর্ষ আদালতের নির্দেশ পালন করেননি রাজস্থান সরকারের কর্তারা। সেই রাজ্যের মুখ্যসচিব ও পুলিসকর্তাদের বিরুদ্ধে আইনি প্রক্রিয়া শুরুর আবেদন জানান তিনি। সেই মামলার শুনানি ছিল শুক্রবার৷
সুপ্রিম কোর্ট জানিয়েছে দেশজুড়ে বেড়ে চলা গণপিটুনির ঘটনা রোধে কী ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে, সেই সংক্রান্ত রিপোর্ট এক সপ্তাহের মধ্যে পেশ করতে হবে রাজ্যগুলিকে৷ গোরক্ষার নামে গণপিটুনির মতো ঘটনায় উদ্বিগ্ন শীর্ষ আদালত জুলাই মাসে জানতে চেয়েছিল কী ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। ‌তখন তিন সপ্তাহের মধ্যে রিপোর্ট পেশ করার নির্দেশ দিয়েছিল আদালত। কিন্তু, মাত্র ১১টি রাজ্য সেই রিপোর্ট পেশ করে। নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে সব কটি রাজ্য রিপোর্ট পেশ না করায় অসন্তুষ্ট আদালত। প্রধান বিচারপতি দীপক মিশ্র, বিচারপতি এ এম খানউইলকর এবং ডি ওয়াই চন্দ্রচূড়ের বেঞ্চে গণপিটুনি সংক্রান্ত মামলার শুনানি চলছে। গত একবছরে দেশের ন’‌টি রাজ্যে ৩১ জনের মৃত্যু হয়েছে গণপিটুনির ঘটনায়।
শুক্রবার শীর্ষ আদালত বলেছে, এক সপ্তাহের মধ্যে রিপোর্ট পেশ না করলে সংশ্লিষ্ট রাজ্যের স্বরাষ্ট্রসচিবদের সশরীরে হাজিরা দিতে হবে। সেই সঙ্গে গণপিটুনি রোধে কী ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে, সেই সংক্রান্ত গাইডলাইন প্রকাশ করতে হবে সরকারি ওয়েবসাইট ও গণমাধ্যমে। কেন্দ্র আদালতে বলেছে, গণপিটুনি রোধে আইন তৈরির জন্য স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিংয়ের নেতৃত্বাধীন একটি মন্ত্রিগোষ্ঠী তৈরি করা হয়েছে।

Facebook Comments

শেয়ার করুন সকলের সাথে...
  • 18
    Shares

খবর এক নজরে…

No comments found

Sponsored~