মেসি ম্যাজিক অব্যাহত রাখতে লিওনেল দেবেন জরিমানা

শেয়ার করুন সকলের সাথে...

ওয়েব ডেস্কঃ কনফেডারেশন কাপ মেসি বিহীন। আসলে চলছে মামলা। দীর্ঘ সময় ধরে টানাপোড়েন চলছিল। কর ফাঁকির মামলায় ২১ মাসের স্থগিত কারাদন্ড হয়েছে বার্সেলোনার তারকা লিওনেল মেসির। সেই শাস্তির হাত থেকে বাঁচতে জরিমানা গুনতে রাজী হয়েছেন মেসি। ফলে তাঁর শাস্তি তুলে নিতে রাজি হয়েছে স্পেনের সরকারী কৌঁসুলিও।

২০১৬ সালের জুলাইয়ে মেসি ও তাঁর বাবা হোর্হের বিরুদ্ধে ২০০৭ থেকে ২০০৯ পর্যন্ত ইমেজ স্বত্ব থেকে আয়ের উপর ৪১ লাখ কর ফাঁকি দেওয়ার অভিযোগ মামলা হয়। পরে মামলায় দোষী প্রমাণিত হওয়ায় ২১ মাসের স্থগিত কারাদণ্ড দেন আদালত। মেসি রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করলেও দেশটির সুপ্রিম কোর্ট তা খারিজ করে দেন। 

স্পেনের সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবরে বলা হয়েছে, দুই লাখ ৫৫ হাজার ইউরো জরিমানার বদলে কারাদণ্ডের শাস্তি তুলে নিতে রাজি হয়েছেন সরকারি কৌঁসুলি।

স্পেনের আইন অনুযায়ী, সহিংস অপরাধ না করলে সাধারণত দুই বছরের নীচে সাজার ক্ষেত্রে কারাবাস হয় না।

তবে মেসি বরাবরই কর ফাঁকির অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে আসছিলেন। তবে, জরিমানা দিয়ে শাস্তিমুক্ত হতে গিয়ে নিজের আগের অবস্থান থেকে মেসি সরে আসতে হবে।

Facebook Comments

শেয়ার করুন সকলের সাথে...

খবর এক নজরে…

No comments found

Sponsored~

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.