আচ্ছে দিনের হাত ধরে দাম বাড়ল পেট্রল ডিজেলের

শেয়ার করুন সকলের সাথে...

ওয়েব ডেস্ক~ মোদী সরকারের আচ্ছে দিন দেখছেন মানুষ৷ শুধু দেখছেন না, হাড়ে হাড়ে টের পাচ্ছেন৷ সেই হাড়ে জ্বালা ধরাচ্ছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ভোটপ্রচারের ইস্যু৷ বুঝলেন না তো কিছু? জ্বালানির দাম এখন মধ্যবিত্তের হেঁসেলে আগুন ধরিয়েছে৷ সৌজন্যে মোদী সরকার৷ আর সেই মোদীবাবুই কর্ণাটকে ভোটপ্রচারে ইস্যু করছেন জ্বালানির দাম বৃদ্ধিকে৷ রাজনৈতিক এই নাটক কবে বন্ধ হবে কেউ জানে না৷

পরিসংখ্যান পরে দিচ্ছি৷ তার আগে, সাধারণ মানুষের জন্য আরেকটি ‘খুশির’ খবর, মঙ্গলবার আরও ২৯ পয়সা দাম বেড়েছে পেট্রলের৷ সমস্ত রেকর্ড ভেঙে চলতি বছরে পেট্রলের বর্ধিত দাম নতুন ইতিহাস তৈরী করেছে৷ রবিবার থেকে আকাশ ছুঁয়েছে জ্বালানির দাম। নয়া দাম হয়েছে ৭৬.২৪ টাকায়৷ পরিবর্তন আনা হয়েছে ডিজেলের দামের ক্ষেত্রেও৷ প্রতি লিটারে ডিজেলের নতুন মূল্য থাকছে ৬৭.৫৭ টাকা৷

দিল্লীতে ৩৩ পয়সা বেড়েছে পেট্রলের দাম৷ সঙ্গে ডিজেলের দাম বেড়েছে ২৬ পয়সা৷ মুম্বইতে গোটা দেশের মধ্যে সবচেয়ে বেশি দাম পেট্রলের৷ স্থানীয় ট্যাক্স যোগ করে প্রতি লিটারের দাম ধার্য করা হয়েছে ৮৪.০৭ টাকা৷ দাম বেড়ে ভোপালে পেট্রলের মূল্য হয়েছে ৮১.৮৩ টাকা প্রতি লিটারে৷ হায়দ্রাবাদ এবং চেন্নাইতে যথাক্রমে ৮০.৭৬ এবং ৭৯.১৩ টাকা লিটার প্রতি৷

Image result for sad indian petrol price

এর আগে জ্বালানির দাম রেকর্ড বেড়েছিল ইউপিএ-টু জমানায় ২০১৩-র সেপ্টেম্বর মাসে। কর্ণাটকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ভোটপ্রচারের অন্যতম ইস্যু ছিল জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধি। বিজেপি ক্ষমতায় আসার পর আন্তর্জাতিক বাজারে প্রায় অর্ধেকে নেমে এসেছিল অপরিশোধিত তেলের দাম। তাঁর প্রভাব অবশ্য দেশে পড়েনি। কারণ সেসময় কেন্দ্র পেট্রোপণ্যের শুল্ক বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেয়। ২০১৪র সেপ্টেম্বর থেকে ২০১৬-র জানুয়ারি পর্যন্ত ১৫ মাসে মোট ১১ বার শুল্ক বাড়ায় কেন্দ্র। অর্থনীতিবিদদের একাংশের মতে কেন্দ্রের এই শুল্কনীতির জন্যই আকাশছোঁয়া জ্বালানি।

Facebook Comments

শেয়ার করুন সকলের সাথে...

খবর এক নজরে…

No comments found

Sponsored~