আন্তর্জাতিক মাপকাঠিতে ভারতে মধ্যবিত্ত মাত্র ২ শতাংশ, জানাচ্ছে সমীক্ষা

শেয়ার করুন সকলের সাথে...
  • 24
    Shares

ওয়েব ডেস্ক~ উপার্জনের নিরিখে বিশ্বে যাঁদের মধ্যবিত্ত শ্রেণিতে রাখা হয়, দেশে তাঁদের সংখ্যা নেহাৎই নগণ্য। দেশের মোট জনসংখ্যার মাত্র ২ শতাংশ। আর্থিক মাপকাঠিতে বিশ্বের অন্যান্য দেশের মধ্যবিত্তরা যেখানে দাঁড়িয়ে, তার চেয়েও অনেকটাই পিছিয়ে রয়েছেন ভারতের মধ্যবিত্তরা। তাই মধ্যবিত্ত ভারত বলে আসলে কিছু নেই! আমরা ভারতীয়রা আর্থিক দিক থেকে নিজেদের মধ্যবিত্ত ভাবলেও, দুনিয়ার আর্থিক গ্রাফে আমরা গরীব৷ কারণ, মানদণ্ডটা হল, দিনে সর্বনিম্ন ১০ থেকে ২০ মার্কিন ডলার উপার্জন।

ওই গবেষণা অবশ্য এও জানাচ্ছে, ভারতে এই একুশ শতকের প্রথম দশকে দারিদ্রের হার যথেষ্টই কমেছে। যা ২০০১ সালে ছিল ৩৫ শতাংশ, তা ২০১১-র আদমসুমারিতে নেমে দাঁড়িয়েছে ২০ শতাংশতে। এ দেশে সরকার, আমজনতা যাঁদের গায়ে ‘মধ্যবিত্ত’-এর তকমা লাগিয়ে দেন, তাঁরা আদতে নিম্নবিত্তই। তবে ‘পিউ’-এর সমীক্ষা বলছে উপার্জনের নিরিখে নিম্নবিত্তের হারেই বিশ্বকে সবচেয়ে বেশি পিছনে ফেলে দিয়েছে ভারত। বিশ্বের হার যেখানে ৫০ শতাংশ, সেখানে ভারতে নিম্নবিত্তের হার মোট জনসংখ্যার ৭০ শতাংশ।

মার্কিন গবেষণা সংস্থা ‘পিউ রিসার্চ সেন্টার’-এর একটি সমীক্ষা এমনটাই জানাচ্ছে। বলছে, মোট ১২০ কোটি জনসংখ্যার দেশ ভারতের ৯৫ শতাংশ মানুষই হয় অত্যন্ত গরিব, না হলে নিম্নবিত্ত। আর এ ব্যাপারে বিশ্বের যা হার (৭১ শতাংশ), তাকেও ছাপিয়ে গিয়েছে ভারত।

Facebook Comments

শেয়ার করুন সকলের সাথে...
  • 24
    Shares

খবর এক নজরে…

No comments found

Sponsored~