খবর ২৪ ঘন্টা

ফিশ বিরিয়ানি – রেসিপি…

শেয়ার করুন সকলের সাথে...

“ বিরিয়ানি” নামটি শুনলে মাটন বা চিকেনের লোভনীয় খাবার চোখের সামনে ভেসে উঠে। মাংস ছাড়াও মাছ দিয়ে তৈরি করা সম্ভব মজাদার এই খাবারটি। সুস্বাদু খাবার তৈরি করে  ছুটির দিনে পরিবারের সামনে পরিবেশন করতে সব গৃহিণীই চান। চিকেন ও মাটন বিরিয়ানি তো অনেক হলো, চলুন আজ হয়ে যাক ফিশ বিরিয়ানি ।  তাছাড়া মাছ খেতে পছন্দ করে না যেসব বাচ্চারা তাদেরকে তৈরি করে দিতে পারেন ফিশ বিরিয়ানি। আজ রইল ফিশ বিরিয়ানি রেসিপি আপনাদের জন্য ।

উপকরণ

প্রণালী

মাছের টুকরো গুলোকে একদম অল্প তেলে হাল্কা লাল করে ভেজে নিন।

 

এতে মাছের আঁশটে ভাবটা চলে যাবে।

একটা বাটিতে টক দই এর সাথে ১ কাপ বেরেস্তার সাথে আদা রসুনবাটা, জয়ফল , জয়িত্রী গুঁড়ো,পোস্ত বাটা দিয়ে মেখে রেখে দিন ।

 

অন্য একটি পাত্রে চাল  নুন দিয়ে সেদ্ধ করে নিন।

 

চাল বেশি সেদ্ধ করবেন না।

বেশি সেদ্ধ হলে বিরিয়ানি ঝরঝরে হবে না।

এবার অন্য প্যান এ তেল / ঘি দিয়ে তাতে পেঁয়াজ কুচি ও দারুচিনি এলাচ দিন। একদম লাল করে বেরেস্তার মত করে ভেজে নিন।

এই পেয়াজ এর সাথে মেখে রাখা দই আর হাফ কাপ দুধ দিয়ে দিন।

 

রান্না করুন ১০ মিনিট।

মশলা কষে আসলে মাছের টুকরা গুলোকে দিয়ে রান্না করুন আরো ৫ মিনিট। যখন একটু লাল হয়ে আসবে  গ্যাস থেকে নামিয়ে নিন।

একটি ওভেন প্রুফ বাটিতে বা একটি হাঁড়িতে প্রথমে কিছু ভাত ঢালুন।

এবার লেবুর পিস  গুলি ছড়িয়ে দিন।

 

মাছের পিসগুলো আর ঝোলটা দিন।

সাথে বেরেস্তা ছড়িয়ে দিন।

আবার রান্না করা ভাত দিয়ে তার  ওপর  জাফরান ভেজা দুধ দিয়ে ফয়েল পেপার দিয়ে ভালো ভাবে মুড়িয়ে নিন যাতে ভাপ না বের হতে পারে।

 

বিরিয়ানির হাঁড়ি  ভালো করে ঢেকে খুবই মৃদু আঁচে দমে বসিয়ে দিন গ্যাসে।

১ চামচ গোলাপ জল ছড়িয়ে দিন ।

ভাত সেদ্ধ না হওয়া পর্যন্ত রান্না করুন।

নাড়বেন না, এতে মাছ ভেঙে যাবে।

 

ওভেন হলে ১৮০ ডিগ্রীতে ২০ মিনিট বেক করুন।

 

 

তৈরি মজাদার ফিশ বিরিয়ানি ।

রাইতার সাথে গরম গরম  পরিবেশন করুন  সুস্বাদু ফিশ বিরিয়ানি

 

 

Facebook Comments

শেয়ার করুন সকলের সাথে...