দেশের নির্বাচনে লড়তে পারবেন না এই নেত্রী!

শেয়ার করুন সকলের সাথে...
  • 17
    Shares

দুর্নীতির মামলায় সাজাপ্রাপ্ত হয়ে জেলে থাকায় তিনটি মনোনয়নপত্রই রিটার্নিং অফিসারের বাছাইয়ে বাতিল হয়ে গেছে বাংলাদেশের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার। ফলে বাংলাদেশের ভোটে লড়তে পারছেন না এই নেত্রী৷ টাঙ্গাইলে বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকি ওরফে বাঘা সিদ্দিকি–সহ বহু প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল হয়েছে। তবে এর বিরুদ্ধে তিনদিনের মধ্যে আবেদন করার সুযোগ রয়েছে। বাতিল হয়েছে শাহবাগের গণজাগরণ মঞ্চের নেতা ডাঃ ইমরান এইচ সরকারেরও। তিনি নির্দল প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন জমা দিয়েছিলেন।
রবিবার ফেনির রিটার্নিং কর্মকর্তা ফেনি–১ আসনে এবং বগুড়ার রিটার্নিং কর্মকর্তা বগুড়া–৬ ও বগুড়া–৭ আসনে খালেদার মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করেন। ফেনি–১ আসনে খালেদার মনোনয়ন বাতিল হলেও মনোনয়ন টিকে গেছে বিএনপি–র বিকল্প প্রার্থী ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুব দলের সভাপতি ফিকুল ইসলাম মজনুরের। এখন তিনিই সেখানে বিএনপি–র প্রার্থী। বগুড়া–৬ (সদর) আসনে খালেদার মনোনয়ন বাতিল হয়েছে। তবে বিকল্প প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগির। ফখরুলের মনোনয়ন বৈধ হয়েছে। ফলে এখানে ফখরুলই লড়ছেন বিএনপি–র ধানের শিষ নিয়ে।
দুর্নীতি মামলায় খালেদার দু’‌বছরের বেশি সাজা হওয়ার বিষয়টিকেই মনোনয়নপত্র বাতিলের কারণ হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে৷ রিটার্নিং কর্মকর্তাদের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশনে আপিল করা হবে বলে জানিয়েছেন বিএনপি নেতারা। বিএনপি–র সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভি বলেছেন, খালেদার মনোনয়নপত্র বাতিলের বিষয়টি ‘সরকারের নীল নকশার অংশ’। উল্লেখ্য, দুটি মামলায় ১৭ বছরের কারাদণ্ড নিয়ে ফেব্রুয়ারি থেকে জেলে খালেদা।

Facebook Comments

শেয়ার করুন সকলের সাথে...
  • 17
    Shares

খবর এক নজরে…

No comments found

Sponsored~