অ‍্যাপেলো কলকাতা এবং সুশান মুখোপাধ্যায়ের মুকুটে যুক্ত হল নতুন ‘পালক’

শেয়ার করুন সকলের সাথে...
  • 11
    Shares

ওয়েব ডেস্কঃ বর্তমান সময়ে আধুনিক জীবনযাত্রার প্রভাবে মানবজীবনে বৃদ্ধি পাচ্ছে হার্টের সমস্যা। বিভিন্ন রোগের প্রতিরোধ সম্ভব হলেও হৃদযন্ত্রের চিকিৎসা দিন দিন কঠিন হয়ে দাঁড়াচ্ছে।বেসরকারী হাসপাতালে চিকিৎসা পরিষেবা নিয়ে অভিযোগ অনেক। সম্প্রতি সব  অভিযোগকে ছাপিয়ে সাফল্যের নতুন দিশা দেখালো অ্যাপেলো কলকাতা। পূর্ব ভারতের প্রথম হাসপাতাল হিসেবে ডা: সুশান মুখোপাধ্যায়ের (ডাইরেক্টর,কার্ডিও থোরাসিক ভাসকুলার সার্জেন অ‍্যাপেলো কলকাতা) তত্বাবধানে অ‍্যাপেলো কলকাতা সাফল‍্যের সঙ্গে এমআইসিএস(মিনিমালি ইনভেসিভ কার্ডিয়াক সার্জারি) পদ্ধতিতে ১০০০’র বেশি রোগীর সফল অস্ত্রোপচার করল। আর এই অসাধ‍্য সাধন হল যার হাত ধরে সেই ডঃ সুশান্ত মুখোপাধ্যায়কে এদিনের অনুষ্ঠানে সংবর্ধিত করেন ড: চিরাগ দোশী ( কার্ডিও থোরাসিক ভাসকুলার সার্জেন,ইউএন মেহেতা ইনস্টিটিউট অফ কার্ডিওলজি, আহমেদাবাদ)।

কলকাতার এক পাঁচতারা হোটেলে এমআইসিএসের পরিষেবা পাওয়া রোগীদের উপস্হিতিতে এক সাংবাদিক সম্মেলন  নতুন রেকর্ডের খতিয়ান তুলে ধরা এই পদ্ধতি সম্পর্কে ও ধারনা দেওয়া হল। বাইপাস সার্জারি হলে সুস্হ হতে সময় লাগত বেশ কয়েকমাস এবং তা অনেক বেশি যন্ত্রনাদায়ক ও ছিল । বাইপাস সার্জারির পর ক্ষতচিহ্ন থেকে যেত অনেকদিন, কিন্তু এমআইসিএস সার্জারির ফলে সেই যন্ত্রনা থেকে রেহাই পাওয়া যাবে এবং বাইপাসের মতন অতবড় ক্ষতচিহ্ন ও থাকবেনা। চিকিৎসকরা জানান এই পদ্ধতিতে রোগীর সুস্হ হতে সময় লাগে প্রায় দু সপ্তাহের কাছাকাছি। হাসপাতাল কতৃপক্ষ জানিয়েছে তারা এই পদ্ধতিকে আরো উন্নত করার প্রচেষ্টা চালাচ্ছে। বর্তমানে এই সার্জারির খরচ প্রায় ২.৫-৩ লক্ষ টাকা অ‍্যাপেলো কলকাতায়। যা দেশের অন‍্যান‍্য মেট্রো শহরের তুলনায় অনেক কম।অন‍্যান‍্য মেট্রো শহরে এই সার্জারির খরচ প্রায় ৮লক্ষ টাকা। অ‍্যাপেলো কলকাতা চেষ্টা চালাচ্ছে যাতে ভবিষ্যতে এই খরচ আরও কমিয়ে সাধারণের কাছে এই চিকিৎসাকে পৌঁছে দেওয়া যায়। সাধারণ বাইপাসের তুলনায় এমআইসিএস পদ্ধতিতে চিকিৎসার সুফল সাধারণ মানুষের সামনে তুলে ধরতে এই সাংবাদিক সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

Facebook Comments

শেয়ার করুন সকলের সাথে...
  • 11
    Shares

খবর এক নজরে…

No comments found

Sponsored~