মাটির তলা থেকে বেরোচ্ছে জ্বলন্ত লাভা, আতঙ্ক রাজ্যে

শেয়ার করুন সকলের সাথে...
  • 106
    Shares

ভূমিকম্পের জন্য অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ উত্তর–পূর্ব ভারত। এটি ভূমিকম্প প্রবণ জোন–পাঁচে অবস্থান করছে। সেখানেই মাটির তলা থেকে জ্বলন্ত লাভা বেরিয়ে আসার মত ঘটনা ঘটল। আশেপাশে কোনও আগ্নেয়গিরি নেই। অথচ আগ্নেয়গিরি লাভার মতো জ্বলন্ত তরল পদার্থ ক্রমাগত বেড়িয়ে চলেছে মাটির তলা থেকে। যা ছড়িয়ে রয়েছে রাস্তায়। তা দেখেই আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন ত্রিপুরার জালিফা গ্রামের বাসিন্দারা। ত্রিপুরা স্পেস অ্যাপলিকেশন সেন্টারের বৈজ্ঞানিক অভিষেক চৌধুরি জানান, খুব ক্ষীণ সম্ভাবনা রয়েছে মাটির নীচে কোনও জীবন্ত আগ্নেয়গিরি লুকিয়ে থাকার। যদিও রাজ্যের বিজ্ঞান, প্রযুক্তি ও পরিবেশ মন্ত্রী সুদীপ রয় বর্মন গোটা বিষয়টি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে জানান, আগেও এ রাজ্যে ভয়াবহ ভূমিকম্পের রেকর্ড রয়েছে। রাজ্য সরকার গোটা ঘটনাটি খতিয়ে দেখছে। তাই লাভার মতো পুরু তরল রাস্তায় পড়ে থাকা কোনও বিপর্যয়ের পূর্বাভাস কি না তা খতিয়ে দেখছে ত্রিপুরার স্পেস অ্যাপলিকেশন সেন্টার। মাটি থেকে লাভা নিঃসরণ হচ্ছে কেন, সে বিষয়টি নজরে রাখা হচ্ছে। এর আগে জালিফা গ্রামেরই একটি ল্যাম্প পোস্টের গায়ে লাভার মতো জ্বলন্ত বস্তু লেগে থাকতে দেখেছিলেন গ্রামবাসীরা। ভয় পেয়ে তাঁরা দমকল এবং স্থানীয় পুলিসে খবর দিয়েছিলেন। দমকলবাহিনী এসে জল ও ফোমের সাহায্যে আগুন নেভানোর চেষ্টা করলে তা নেভাতে ব্যর্থ হয়। ততক্ষণে ওই অগ্ন্যুত্‌পাতে জায়গাটি পুড়ে যায়। সেই সময় ত্রিপুরা সরকারের বিজ্ঞান বিভাগের বৈজ্ঞানিকরা এবং প্রযুক্তিবিদ ও পরিবেশবিদরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করতে গিয়েছিলেন। ঘটনাস্থল পরীক্ষা করার পর এবং সেখান থেকে নমুনা সংগ্রহ করে তা ল্যাবে পরীক্ষা করতে পাঠায়। বিষেশজ্ঞরা জানান, কোনও দাহ্য বস্তু থেকেই এই আগুন।

Image result for tripura lava news
এই বিষয়টি প্রকাশ্যে আসার পর ত্রিপুরা সরকারের চিন্তার বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। কারণ চলতি বছরে এ নিয়ে রাজ্যে তিনবার এ ধরনের ঘটনা ঘটল। ত্রিপুরা রাজ্যটি বাংলাদেশের চট্টগ্রামের খুব কাছে অবস্থিত। এ বছরের এপ্রিলের মাঝামাঝি সময়ে বৈষ্ণবপুর এবং সানরুমের ঘাগড়াবসতি নামে দুটি গ্রামে লাভার মতো গনগনে তরল রাস্তায় পড়ে থাকতে দেখা যায়। সেই সময়ও বিষয়টি সেভাবে গুরুত্ব দেননি বিশেষজ্ঞরা বলে জানা যাচ্ছে। তরল পদার্থের সঙ্গে আগুন ও গ্যাসও বের হচ্ছিল।

Image result for tripura lava news

Facebook Comments

শেয়ার করুন সকলের সাথে...
  • 106
    Shares

খবর ২৪ ঘন্টা

খবর এক নজরে…

No comments found